দেশের মানুষ চায় জাতীয় পার্টি ক্ষমতায় আসুক: জিএম কাদের

73

আওয়ামী লীগ-বিএনপি নয়; বরং জাতীয় পার্টির প্রতি মানুষের আস্থা বাড়ছে বলে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সংসদের বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদের জানান, দল শক্তিশালী করতে পারলে আমরা আবারও নির্বাচিত হয়ে ক্ষমতায় যেতে পারব।

বর্তমান দেশে যে পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে, দেশের মানুষ চায় জাতীয় পার্টি ক্ষমতায় আসুক। রোববার রংপুর সার্কিট হাউসে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এসব কথা বলেন। জিএম কাদের বলেন, কোনো দলাদলি করে প্রতিপক্ষকে সুযোগ করে দেয়া যাবে না।

দলের ভেতর নানা মত থাকতে পারে; তা দলের ভেতর ঘরে বসেই ঠিক করতে হবে। এ নিয়ে বাইরে রাজনীতি করা যাবে না। তিনি বলেন, দলে কোনো গ্রুপিং কোন্দল চলবে না। আমি এসব করতে দেব না। যেসব জায়গায় এ ধরনের সমস্যা আছে আমি সমাধান করার উদ্যোগ নিয়েছি।

এর আগে তিনি দুপুরে রংপুর নগরীর মুন্সিপাড়া কবরস্থানে তার বাবা মরহুম মকবুল হোসেন অ্যাডভোকেট ও মা মজিদা খাতুনের কবর জিয়ারত করেন। এ সময় তিনি বলেন, তার বাবা-মার কবরের পাশেই যেন তার মৃ”ত্যু’র পর কবর দেয়া হয়।

এ নিয়ে যেন কোনো বিতর্ক সৃষ্টি না হয়। সেজন্য তিনি সেখানে তার জন্য একটি কবর পাকা সীমানা দিয়ে সংরক্ষণের জন্য সিটি মেয়রকে অনুরোধ করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য ও পার্টির যুগ্ম মহাসচিব রাহগীর আল মাহি সাদ এরশাদ,

পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য রংপুর সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা, মহানগর সাধারণ সম্পাদক ও পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান এসএম ইয়াসির, জেলা কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি আজমল হোসেন লেবু, সাধারণ সম্পাদক হাজী আব্দুর রাজ্জাক প্রমুখ।

জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিল প্রযোজক সমিতি

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতি থেকে সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়েছে জায়েদ খানের সদস্যপদ। প্রযোজক পরিবেশক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সামসুল আলম রোববার (২৫ অক্টোবর) সন্ধ্যায় গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ‘জায়েদ খানের সাম্প্রতিক কার্যক্রমের ওপর ভিত্তি করে আনুষ্ঠানিক সভায় প্রযোজক সমিতি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’ গত জুলাই মাসে জাহেদ খানের বিরুদ্ধে চচ্চিত্রের স্বার্থবিরোধী কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভি’যোগ ওঠে।

এরপর চলচ্চিত্রের সঙ্গে যুক্ত ১৮ টি সংগঠন জায়েদ খানকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতি জায়েদ খানকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিলে জায়েদ খান নোটিশের জবাবও দেন।

তবে চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতি সন্তুষ্ট নয় সেই জবাবে। এর পরিপ্রেক্ষিতেই ৩ অক্টোবর সমিতির ১১তম সভায় বিস্তারিত আলোচনার পর অ’পরা’ধের ধরন ও পরিসীমা পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে বিশ্লেষণ করে জায়েদ খানের সদস্যপদ স্থগিত করা হলো।