ভোলায় এক ঘণ্টার পুলিশ সুপার দশম শ্রেণীর রিমি

120

ভোলায় তাসনিম আজিজ রিমি (১৫) নামের এক স্কুলছাত্রী এক ঘণ্টার জন্য পুলিশ সুপারের দায়িত্ব পালন করেছেন। বুধবার (২৮ অক্টোবর) রিমির হাতে পুলিশ সুপারের দায়িত্ব তুলে দেন পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার।

প্ল্যান ইন্টারন্যাশনালের সহযোগিতায় ‘গার্লস টেকওভার’ কর্মসূচীর আওতায় ন্যাশনাল চিলড্রেন টাক্স ফোর্স (এনসিটিএফ) এর আয়োজনে এক অনুষ্ঠানে তাকে দায়িত্ব প্রদান করা হয়।

তাসনিম আজিজ রিমি ভোলা পৌর ১নং ওয়ার্ডের ইলিশা বাসস্টান্ড এলাকার তারেক আব্দুল আজিজের মেয়ে। রিমি ভোলা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্রী।

দায়িত্ব পালনকালে রিমি জানান, একটি সুষ্ঠু সমাজ ও নিরাপদ পরিবেশের স্বপ্ন দেখেন তিনি। একই সাথে তিনি ধ”র্ষ”ক”দের প্রকাশ্যে দৃ’ষ্টা’ন্তমূলক শা’স্তির দাবি নিশ্চিত করার প্রস্তাব করেন।

অনুষ্ঠানে শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা আখতার হোসেন, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা চামেলি বেগম, উপজেলা শিল্পকলা একাডেমীর সাধারণ সম্পাদক আবিদুল আলম, এনসিটিএফ এর জেলা সমন্বয়কারী আদিল হোসেন তপুসহ জেলা পুলিশের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

ভোলা পুলিশ সুপার জানান, তরুণ ও ছাত্রছাত্রীসহ যুব সমাজকে নিয়ে আমরা যদি সামনে এগোতে পারি তা হলে আমাদের স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে।

দাম কমেছে দেশি মাছের

বগুড়ার পাইকারি বাজারে সরবরাহ বাড়ায় দাম কমেছে সব ধরনের দেশি মাছের। নদী, খাল, বিলের পানি কমতে থাকায় সরবরাহ বাড়ছে বলে জানান আড়ৎদাররা। কম দামে মাছ কিনতে পেরে খুশি ক্রেতারা। ভোর থেকে হাঁকডাকে মুখর বগুড়ার চাষি পাইকারি মাছের বাজার।

জেলার দূর-দূরান্ত থেকে পাইকারি ক্রেতারা আসেন এখানে মাছ কিনতে। পাইকারি আড়তে পছন্দের মাছ কম দামে কিনতে পেরে সন্তুষ্ট তারা। যমুনা নদী, চলনবিলসহ বিভিন্ন জলাশয় থেকে মাছ আসে এই বাজারে। প্রতিদিনই মাছের সরবরাহ বাড়ছে। বেচাকেনা ভাল হওয়ায় খুশি আড়ৎদাররা।

বাজারে প্রতি কেজি বড় বোয়াল ও আইড় ৬শ’, রুই ও কাতলা ২শ থেকে ৩শ এবং মাগুর, শিং কৈই ৪শ থেকে ৫শ টাকায় বিক্রি হয়। প্রতিদিন এই পাইকারি বাজারে একশ থেকে সোয়াশো মণ মাছের সরবরাহ হয়।