হৃদরোগ ও কিডনিতে পাথর জমা প্রতিরোধ করে মিষ্টি কুমড়া

503

একটি অতি পরিচিত সবজি মিষ্টি কুমড়া। মিষ্টি কুমড়াতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ ও বিটাক্যারোটিন। এই সবজিটি চোখের জন্য খুবই ভালো। রেটিনার বিভিন্ন অসুখ প্রতিরোধে মিষ্টি কুমড়া বিশেষ ভূমিকা পালন করে। শুধু চোখের অসুখ নয়, ভিটামিন এ এর অভাবজনিত অন্যান্য রোগেও মিষ্টি কুমড়া উপকারী।

গর্ভবতী মায়েদের স্বাস্থ্যের জন্য কুমড়া অনেক উপকারী খাদ্য। এটি পাশাপাশি হজম শক্তি বৃদ্ধি করে ও কুমড়ার আয়রন বাচ্চাকে অক্সিজেন দিতে সাহায্য করে ও মায়ের র’ক্তশূন্যতা রোধ করে।

মিষ্টি কুমড়াতে অধিক পরিমাণে বিটাক্যারোটিন। বিভিন্ন দূষণ, স্ট্রেস ও খাবারে যে সব কেমিক্যাল ও ক্ষতিকর উপাদান থাকে সেগুলোর কারণে ফ্রি রেডিকাল ড্যামেজ হতে শুরু করে। মিষ্টি কুমড়া ফ্রি রেডিকাল ড্যামেজ প্রতিরোধ করতে পারে।

মিষ্টি কুমড়া নিয়মিত খেলে হৃদরোগও প্রতিরোধ করা যায়। তা ছাড়া প্রচুর পরিমাণে ম্যাগনেসিয়াম ও পটাশিয়াম যা হাইপারটেনশন এবং হৃদরোগ দূরে রাখে। এ ছাড়া মিষ্টি কুমড়ার বিভিন্ন উপাদান প্রস্রাবের সমস্যা কমায় ও কিডনিতে পাথর হতে বাধা প্রদান করে।

মিষ্টি কুমড়ায় প্রচুর পরিমাণে আঁশ থাকায় তা সহজেই হজম হয়। হজমশক্তি বৃদ্ধি ও কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতে মিষ্টি কুমড়া ভূমিকা রাখে।

মিষ্টি কুমড়াতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে জিংক ও আলফা হাইড্রোক্সাইড। জিংক ইমিউনিটি সিস্টেম ভালো রাখে ও অস্টিওপোরোসিস প্রতিরোধ করতে সাহায্য করে। এছাড়া বয়সের বলিরেখা মুছে ত্বক উজ্বল করতেও মিষ্টি কুমড়া সাহায্য করে। তাই আজ থেকে নিয়মিত খাদ্যতালিকায় মিস্টি কুমড়াকে যুক্ত করে দিন।

শ্বাসকষ্টে-মাথা ব্যথায় উপকারী পুদিনা পাতা

খাবার সুস্বাদু করে তুলতে যেমন কার‌্যকরী তেমনি এর অনেক ঔষধি গুণও রয়েছে। আদিকাল থেকে এর ঔষধি গুণের কথা শুনে আসছে মানুষ। পুদিনা পাতার চাটনি বা স্মুদি, যেভাবেই পারেন খাবারে পুদিনা পাতা যোগ করতে পারেন।

পুদিনার কী কী গুণ আছে দেখে নেওয়া যাক-

শ্বাসকষ্টে উপকারী: শ্বাসকষ্ট রোগীদের জন্য পুদিনা পাতা এক আশীর্বাদ বলা চলে। পুদিনা পাতা ঠান্ডা হয়, তাই শ্বাস প্রণালি পরিষ্কার করে। তবে অতিমাত্রায় পুদিনা পাতা খাওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে।

সর্দি-কাশি থেকে রেহাই: ঠান্ডা নাক বন্ধ হলে এবং শ্বাস নিতে কষ্ট হলে পুদিনা ব্যবহার করুন। পুদিনা পাতা ঠান্ডা হয়, তাই শ্বাস প্রণালি পরিষ্কার করে।

মাথা ব্যথার উপশম: পুদিনা পাতার শীতলতা মাথা ব্যথা ভালো করে দেয়। যেকোনো পুদিনা বেস তেল মাথায় লাগালে অনেকটা আরাম পাওয়া যায়।

মুখের স্বাস্থ্যে উপকারী: মুখের দুর্গন্ধ? পুদিনা পাতা বা এই পাতার স্বাদের কোনো চুইংগাম চাবালে আপনার মুখের দুর্গন্ধ হ্রাস পাবে। সাথে এই মুখের দাগও পরিষ্কার করে দাঁতের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে সহায়তা করে।

এ ছাড়া পুদিনা পাতা অরুচি দূর করে কাশি,অরুচি ও পাকস্থলীর প্রদাহে পুদিনা উপকারী। ওজন কমাতে, ত্বক ভালো রাখতে ভালো এন্টিসেপটিক।